উত্তর বঙ্গোপসাগরে বায়ুচা’পের তা'রতম্যের আধিক্যের প্র’ভাবে বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্র বন্দরসমূহের উপর দিয়ে ঝ’ড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এ জন্য চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমূদ্রবন্দরসমূহকে ৩ নম্বর স্থা’নীয় সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। আজ সোমবার (৬ জুলাই) সকালে জা'রি করা এক সত’র্ক বার্তায় এমনটি জা’নিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

এতে আরও বলা হয়, উত্তর বঙ্গোপসাগরে অব’স্থানরত মাছ ধ’রার নৌকা ও ট্রলারসমূহকে পরবর্তী নির্দে'শ না দেওয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি এসে সা’বধানে চলাচল ক’রতে বলা হয়েছে। এদিকে রোববার সন্ধ্যায় ৬ টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, আগামী ৪৮ ঘণ্টায় বৃষ্টির প্রবনতা বৃ’দ্ধি পেতে পারে এবং বর্ধিত ৫ দিনের অবহাওয়ায় এ প্রবনতা অব্যা’হত থাকতে পারে জা’নিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আবহওয়া অধিদপ্তর ঐ পূর্বাভাসে জা’নায়, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় এবং ঢাকা, রংপুর, ময়মনসিংহ ও রাজশাহী বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থা’য়ীভাবে দ’মকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারী ধ’রণের বৃষ্টি অথবা ব’জ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই স’ঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারী ধ’রণে ভারী থেকে ভারী বর্ষণ হতে পারে। একই স’ঙ্গে সারাদেশে রাতের মতো দিনের তাপমাত্রার অপরিবর্তিত থাকতে পারে।

আবহাওয়ার সার সংক্ষেপে বলা হয়েছে, মৌসুমী বায়ুর অক্ষ রাজস্থান, হরিয়ানা, উত্তর প্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চল হয়ে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত। মৌসুমী বায়ু বাংলাদেশের উপর মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে মাঝারী অব’স্থায় বিরাজ করছে।